মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর ২০২০, ০১:১৩ অপরাহ্ন

Notice :

খায়রুল হুদা চপলকে অভিনন্দন

বর্তমান রাজনীতিক পরিস্থিতিতে ও আর্থসামাজিক ব্যবস্থায় ব্যর্থতার পরিভাষায় কথা বলেন যাঁরা, তারা সংখ্যায় গুটিকয়েক মাত্র। সাধারণত সিংহভাগ রাজনীতিকই কথা বলেন ক্ষমতার পরিভাষায়। সে জন্য রাজনীতি এ দেশে এখনও জনবিচ্ছিন্নতার ব্যাধিতে আক্রান্ত একটি জটিল প্রপঞ্চ যার নিহিতার্থ দাঁড়ায় রাজনীতিকরা এদেশে রাজনীতি করেন আত্মস্বার্থে উজ্জীবিত হয়ে। কিন্তু সুনামগঞ্জ জেলা যুবলীগের নতুন কমিটির মনোনীত আহ্বায়ক খায়রুল হুদা চপল সংবর্ধনার জবাবে যখন পাহাড়ি ঢলে ও বাঁধ ভেঙে ফসল তলিয়ে যাওয়া হাওরের কৃষকের পাশে যুবলীগ সদস্যদের দাঁড়ানোর আহ্বান জানিয়ে বলেনÑ “হাওরগুলোতে তলিয়ে যাচ্ছে এমন ফসল রক্ষায় কৃষককে সহযোগিতা করুন। কৃষক বাঁচলে দেশ বাঁচবে।” তখন সহজেই বুঝতে পারা যায় যে তিনি ক্ষমতার পরিভাষায় কথা বলছেন না। জনদরদী চপলকে অভিনন্দন।
আমজনতার ইচ্ছা এই যে, আমাদের রাজনীতিকরা যেনো, এরকম জনদরদী হয়ে ওঠেন এবং কাজ করেন দলীয় স্বার্থের ঊর্ধ্বে উঠে দেশ ও দশের স্বার্থে। তিনি (খায়রুল হুদা চপল) আরও বলেছেনÑ “সুনামগঞ্জ যুবলীগে এখন থেকে আর কোন গ্রুপিং করতে দেওয়া হবে না। শান্তির এ শহরে আমরা সকলেই শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রেখে রাজনীতি করতে চাই। আমি অন্যায়কে প্রশ্রয় দেবো না, নিজেও কোন অন্যায় করবো না। এ অঙ্গীকার করে গেলাম।” তাঁর এই মহৎ ইচ্ছা ও অঙ্গীকার যেনো রক্ষিত হয়, এই কামনা করি।
পরিশেষে বলি, জাতিগতভাবে আমাদেরকে মনে রাখতে হবে যে, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুতনয়া শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ আজ পশ্চাদপদ রক্ষণশীলতা, ভয়ঙ্কর জঙ্গিবাদ ও মৌলবাদিতার অতল অন্ধকার থেকে আলোকোজ্জ্বল উন্নয়নের পথে অগ্রসর হয়ে চলেছে। জাতীয় মুক্তির এই মহৎ অভিযানে অগ্রসেনাদল হিসেবে খায়রুল হুদা চপলের নেতৃত্বে সুনামগঞ্জ জেলা যুবলীগকে চাই অগ্রণী ভূমিকায়। আওয়ামী লীগের ভেতরের জনবিরোধী, মানবতাবিরোধী ও প্রতিক্রিয়াশীল সকল জঞ্জাল-জটিলতা সুনামগঞ্জ যুবলীগের দেশপ্রেমী তৎপরতার বন্যায় ধুয়েমুছে ভেসে যাক। এই কামনা করি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী