বৃহস্পতিবার, ০২ জুলাই ২০২০, ০৮:৩৬ অপরাহ্ন

Notice :

দেশে প্রতিবন্ধীর সংখ্যা ১৬ লাখ ৩৫ হাজার

সুনামকণ্ঠ ডেস্ক ::
সমাজকল্যাণমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ বলেছেন, গত ২৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ১৬ লাখ ৩৫ হাজার ৮৯৮ জন প্রতিবন্ধী ব্যক্তিকে ডাক্তার দ্বারা শনাক্ত করা হয়েছে। তাদের সার্বিক তথ্য ‘ডিজেবিলিটি ইনফরমেশন সিস্টেম’-এ অন্তভূক্ত করা হয়েছে। এটি একটি চলমান প্রক্রিয়া। বর্তমানে উক্ত সফটওয়্যারটি আধুনিকীকরণের কাজ চূড়ান্ত পর্যায়ে আছে।
জাতীয় সংসদে সোমবার জাতীয় পার্টির চিফ হুইপ রংপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য মশিউর রহমান রাঙ্গার করা এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ তথ্য জানান।
মন্ত্রী জানান, ২০১৫ সালের ৩ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের মাঝে লেমিনেটেড পরিচয়পত্র সরবরাহ কাজের শুভ উদ্বোধন করেন। এন্ট্রিকৃত ডাটার আলোকে প্রতিবন্ধী ব্যাক্তিদের মধ্যে লেমিনেটেড পরিচয়পত্র বিতরণ করা হচ্ছে।
নুরুজ্জামান আহমেদ বলেন, ২০১১-১২ অর্থবছরে পাইলটভিত্তিতে প্রতিবন্ধিতা শনাক্তকরণ জরিপ কর্মসূচি শুরু হয়। এর পরের অর্থবছরে পাইলটভিত্তিতে জরিপ পরিচালিত উপজেলা ব্যতীত দেশের অবশিষ্ট এলাকায় বাড়ি বাড়ি গিয়ে জরিপ পরিচালনার উদ্যোগ নেওয়া হয়। জরিপ কাজ বাস্তবায়নের জন্য বিভিন্ন মেয়াদে জাতীয় কর্মশালা, বিভাগীয়, জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে অবহিতকরণ সভা, তথ্য সংগ্রহকারী ও সুপারভাইজার, ডাক্তার ও কনসালট্যান্ট এবং সফটওয়্যারসহ মোট ৬৭৯টি প্রশিক্ষণের মাধ্যমে মোট ৮৫ হাজার ৪৪১ জনকে প্রশিক্ষণ ও অবহিতকরণের আওতায় আনা হয়েছে।
মন্ত্রী জানান, ২০১৩ সালের ১ জুন থেকে মাঠ পর্যায়ে তথ্য সংগ্রহের কাজ শুরু হয়। ২০১৩ সালের ১৪ নভেম্বর প্রাথমিক তথ্য সংগ্রহের কাজ স¤পন্ন হয়। ২০১-১৫ অর্থবছরে বাদ পড়া প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের জরিপভুক্তকরণ ও ডাক্তার কর্তৃক শনাক্তকরণের কাজ প্রায় স¤পন্ন করা হয়। ডাক্তার কর্তৃক শনাক্তকৃত ১২ ধরনের প্রতিবন্ধী ব্যক্তির তথ্যগুলো যথাযথভাবে সংরক্ষণ এবং সংরক্ষিত তথ্যের আলোকে প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের সামগ্রিক উন্নয়ন নিশ্চিত করতে ‘ডিজেবিলিটি ইনফরমেশন সিস্টেম’ শিরোনামে একটি সফটওয়্যার তৈরি করা হয়েছে। তৈরিকৃত ওয়েব বেজড সফটওয়্যারের মাধ্যমে তথ্যভা-ারে প্রতিবন্ধী ব্যক্তিদের তথ্যগুলো সন্নিবেশিত হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী