1. [email protected] : admin2017 :
  2. [email protected] : Sunam Kantha : Sunam Kantha
  3. [email protected] : wp-needuser : wp-needuser
শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ০৪:১৬ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

প্রধান শিক্ষকের অপসারণের দাবিতে মানববন্ধন

  • আপডেট সময় সোমবার, ১ জুলাই, ২০২৪

স্টাফ রিপোর্টার ::
জগন্নাথপুর উপজেলার চিলাউড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এমদাদুল হকের অপসারণের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছেন অভিভাবক ও এলাকাবাসী। রবিবার দুপুরে বিদ্যালয় ফটকের সামনে ঘণ্টাব্যাপী এই কর্মসূচিতে বক্তারা বলেন, প্রধান শিক্ষক এমদাদুল হক দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকে ম্যানেজিং কমিটি সাথে সমন্বয় না করে মনগড়াভাবে বিদ্যালয়ের যাবতীয় কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছেন। নানা অজুহাতে ব্যক্তিগত খরচ দেখিয়ে প্রতিষ্ঠানের টাকা আত্মসাৎ করছেন। বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা সংক্রান্ত অভিযোগে প্রেক্ষিতে অধিদপ্তরের নির্দেশ প্রতিপালন না করার পাশাপাশি রাতের আঁধারে এডহক কমিটি গঠন করে নিয়ম বহির্ভূতভাবে কার্যক্রম পরিচালনা করছেন।
মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন ম্যানেজিং কমিটির সাবেক সদস্য রাজা মিয়া, বিদ্যালয়ের অভিভাবক প্রতিনিধি মো. ছায়াদ মিয়া, চিলাউড়া বাজার কমিটির সভাপতি আব্দুল মালেক, সাবেক ইউপি সদস্য মো. আবু তাহের, মাওলানা শেরুজ্জামান, সাবেক ইউপি সদস্য বজলুর রহমান, জামাল আহমদ, সাবেক ইউপি সদস্য বাবুল মাহমুদ, সমাজসেবক জমাত আলী, লেমন মিয়া, লন্ডন প্রবাসী আব্দুল আলিম, সমাজসেবক রফিকুল ইসলাম তাজ, সেলিম আহমদ, জাহাঙ্গীর আলম, আজির উদ্দিন, হাজী সেবুল মিয়া, আব্দুল গফফার, রুহেল মিয়া, সমির খান, আঙ্গুর মিয়া, আবদুল কাদির, হাজী আনোয়ার হোসেন, তাজুদ মিয়া, শাহজাহান মিয়া, তাজ উদ্দিন, সেলিম আহমদ, আব্দুল আলিম, মিজানুর রহমান প্রমুখ।
মানববন্ধন শেষে প্রধান শিক্ষকের অপসারণের দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন অভিভাবক ও এলাকাবাসী। বিক্ষোভ মিছিলটি চিলাউড়া বাজারের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে।
তবে এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন প্রধান শিক্ষক এমদাদুল হক। তিনি বলেন, আমার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আনা হচ্ছে তা মিথ্যা ও বানোয়াট। প্রতিষ্ঠান নিয়মতান্ত্রিকভাবে চলছে।
এ ব্যাপারে এডহক কমিটির সভাপতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সায়েদুল ইসলাম বলেন, মানববন্ধন হয়েছে জানি। তবে কারা কি কারণে করছে জানিনা। বিদ্যালয়ে এখন কোনো কমিটি নেই। কমিটি গঠন নিয়ে এলাকায় পক্ষ-বিপক্ষে ভিন্নমত রয়েছে। এডহক কমিটির মাধ্যমে এখন বিদ্যালয়ের কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে।

 

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com