1. [email protected] : admin2017 :
  2. [email protected] : Sunam Kantha : Sunam Kantha
  3. [email protected] : wp-needuser : wp-needuser
রবিবার, ২১ এপ্রিল ২০২৪, ১১:৪৬ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

ধর্মপাশায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে আহত ৩০

  • আপডেট সময় শনিবার, ২৩ মার্চ, ২০২৪

ধর্মপাশা প্রতিনিধি ::
ধর্মপাশা উপজেলার জয়শ্রী ইউনিয়নের সরস্বতীপুর গ্রাম সংলগ্ন গুরমার হাওরে দুই পক্ষের সংঘর্ষে নারী-পুরুষসহ অন্তত ৩০জন আহত হয়েছেন। বৃহ¯পতিবার বিকেল সোয়া পাঁচটার দিকে পূর্ব বিরোধের জের ধরে এই ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষে আহত ১০জনকে ওইদিন রাতেই ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও চারজনকে ধর্মপাশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।
এলাকাবাসী ও ধর্মপাশা থানা পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার জয়শ্রী ইউনিয়নের সরস্বতীপুর গ্রামের বাসিন্দা গোলাম মৌলা (৬০) ও একই গ্রামের আজাদ মিয়া (৩৫) এই দুই পক্ষের মধ্যে বোরো জমির সীমানা নির্ধারণ, মসজিদের পরিচালনা কমিটি গঠনসহ পারিবারিক নানা বিষয়কে কেন্দ্র করে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। বৃহ¯পতিবার বিকেল সোয়া পাঁচটার দিকে সরস্বতীপুর গ্রাম সংলগ্ন গুরমার হাওরে এই দুইপক্ষের লোকজনদের মধ্যে কথা কাটাকাটির জের ধরে সংঘর্ষ বেধে যায়। সংঘর্ষে গোলাম মৌলা (৬০), হাবিবুর রহমান (৪০), মান্নান মিয়া (৬০), আমির হোসেন (৩০), তামিম মিয়া (২৫), আনোয়ার হোসেন (৩০), সাজিবুল (২৩), জৈন উদ্দিন (৫০), আলী রহমান (৪০), আতাবুর মিয়া (৪০), শফিক মিয়া (৩০), সালমান মিয়া (২৫), কিবরিয়া (৩০), নূর আলম (৩০), পারভীন (৪০), অলিনূর (৩০), শাহীদ মিয়া (৫০), আল আমিন (৩২), শাহীন মিয়া (২৫), আজাদ মিয়া (৩৫), আমাদুল (১৬), জ্যোৎ¯œা (৩৫) সহ অন্তত ৩০জন আহত হন।
আহতদেরকে স্থানীয় লোকজন রাত পৌনে নয়টার দিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরি বিভাগে নিয়ে আসেন। এদের মধ্যে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে গুরুতর আহত গোলাম মৌলা, মান্নান মিয়া, জৈন উদ্দিন, তামিম মিয়া, নূর আলম, হাবিবুর রহমান, আলী রহমান, সাজিবুল, আতাবুর মিয়া, আমির হোসেনকে রাতেই ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়া আমাদুল, অলিনূর, আনোয়ার ও জ্যোৎ¯œা এই চারজনকে ধর্মপাশা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। আহত অন্যান্যরা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও স্থানীয়ভাবে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছেন।
ধর্মপাশা থানার এসআই আবদুস সবুর মিয়া বলেন, পূর্ব বিরোধের জের ধরে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় লিখিত অভিযোগ এখনো আমরা পাইনি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com