1. [email protected] : admin2017 :
  2. [email protected] : Sunam Kantha : Sunam Kantha
  3. [email protected] : wp-needuser : wp-needuser
বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৬:১৬ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

স্মরণসভায় বক্তারা : বজলুল মজিদ চৌধুরী ছিলেন তারকা, একটি প্রতিষ্ঠান

  • আপডেট সময় শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২৪

স্টাফ রিপোর্টার ::
বীর মুক্তিযোদ্ধা, আইনজীবী, লেখক, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষক বজলুল মজিদ চৌধুরী খসরু’র ৩য় মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। শনিবার সন্ধ্যায় শহরের শহীদ মুক্তিযোদ্ধা জগৎজ্যোতি পাবলিক লাইব্রেরি মিলনায়তনে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানের আয়োজন করে বীর মুক্তিযোদ্ধা বজলুল মজিদ চৌধুরী খসরু স্মৃতি পরিষদ।
এতে সভাপতিত্ব করেন সুনামগঞ্জ সরকারী কলেজের সাবেক অধ্যক্ষ প্রফেসর পরিমল কান্তি দে। সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন পিএসসি’র সাবেক চেয়ারম্যান ও সুনামগঞ্জ-৪ আসনের এমপি ড. মোহাম্মদ সাদিক, পৌর মেয়র নাদের বখত।
জেলা উদীচীর সাধারণ স¤পাদক জাহাঙ্গীর আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত স্মরণসভায় বক্তব্য রাখেন নারীনেত্রী শীলা রায়, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাড. সৈয়দ নজরুল ইসলাম সেফু, কবি ও লেখক সুখেন্দু সেন, তাহিরপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান করুণাসিন্ধু চৌধুরী বাবুল, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক দেওয়ান ইমদাদ রেজা চৌধুরী, জেলা আওয়ামী লীগ নেতা হায়দার চৌধুরী লিটন, সিরাজুর রহমান সিরাজ, মুক্তিসংগ্রাম স্মৃতি ট্রাস্টের সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. সালেহ আহমেদ, অ্যামেরিকা প্রবাসী লেখক ইশতিয়াক রুপু, নারীনেত্রী গৌরী ভট্টাচার্য্য, মুক্তিযোদ্ধা আবু সুফিয়ান, মহিলা কল্যাণ কেন্দ্রের সাধারণ সম্পাদক দিলারা বেগম, প্রয়াত বজলুল মজিদ চৌধুরী খসরু’র স্ত্রী কবি মুনমুন চৌধুরী, ভাতিজি আফরিন চৌধুরী প্রমুখ।
বক্তারা বলেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা, আইনজীবী, লেখক, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক গবেষক বজলুল মজিদ চৌধুরী খসরু ছিলেন বহুবিদ প্রতিভার অধিকারী। তিনি পরিবার সমাজে ছিলেন ঢাল স্বরূপ। শিক্ষার প্রসার ঘটাতে নিজ গ্রামে বিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করেছেন। তিনি মুক্তিযুদ্ধ বিষয় নিয়ে বই লিখে সুনাম অর্জন করেছেন।
বক্তারা বলেন, বজলুল মজিদ চৌধুরী খসরুর শিক্ষা জীবন থেকে আমরা অনেক কিছু শিখেছি। আমরা মুক্তিযুদ্ধ দেখেছি। খসরু নিজে মুক্তিযুদ্ধ করেছেন। তারা আরও বলেন, যেখানে গুণীজনকে কদর করা হয় না। সেখানে গুণী ব্যক্তির জন্ম হয় না। আজ তিনি নেই। তিনি চলে যাওয়ায় সুনামগঞ্জে মানব সভ্যতার ক্ষতি হয়েছে। বজলুল মজিদ খসরু ছিলেন একটি তারকা, একটি প্রতিষ্ঠান।
আলোচনা সভা শেষে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান দুইজনকে সেলাই মেশিন ও ৩৫ জন শিক্ষার্থীকে স্কুল ড্রেস প্রদান করা হয়।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com