1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ০১:১৩ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

হাওর বাঁচাও আন্দোলনের শোকসভা : মালেক পীর ছিলেন আমৃত্যু যোদ্ধা

  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ৫ অক্টোবর, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার ::
হাওর বাঁচাও আন্দোলন কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মালেক হুসেন পীর স্মরণে হাওর বাঁচাও আন্দোলন কেন্দ্রীয় কমিটির উদ্যোগে শোকসভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার সন্ধ্যায় দৈনিক সুনামকণ্ঠ কার্যালয়ে এই শোকসভা অনুষ্ঠিত হয়।
হাওর বাঁচাও আন্দোলন কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু সুফিয়ানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ স¤পাদক বিজন সেন রায়ের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত শোকসভায় বক্তব্য রাখেন হাওর বাঁচাও আন্দোলন উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য নারীনেত্রী শীলা রায়, রমেন্দ্র কুমার দে, বিকাশ রঞ্জন চৌধুরী ভানু, কেন্দ্রীয় নির্বাহী সদস্য ও সিলেট জেলা আহ্বায়ক কমিটির সদস্য অ্যাডভোকেট শহীদুজ্জামান চৌধুরী, কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি সুখেন্দু সেন, চিত্তরঞ্জন তালুকদার, সিনিয়র সাংবাদিক ম ফ র ফোরকান, কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ স¤পাদক নির্মল ভট্টাচার্য্য, সালেহিন চৌধুরী শুভ, সাংগঠনিক স¤পাদক একে কুদরত পাশা, দপ্তর স¤পাদক প্রভাষক দুলাল মিয়া, প্রচার স¤পাদক আনোয়ারুল হক, নির্বাহী সদস্য ওবায়দুল হক মিলন, শহীদ নুর আহমেদ প্রমুখ।
শোকসভায় বক্তারা বলেন, মুক্তিযোদ্ধা মালেক হুসেন পীর ১৯৭১ সালে অস্ত্র হাতে নিয়ে দেশমাতৃকা রক্ষায় অংশ নিয়েছিলেন। দেশ স্বাধীনের পর অস্ত্রজমা দিয়ে নতুন যুদ্ধ শুরু করেন। স্বাধীন দেশে যাতে কোনো দুর্নীতি-অনিয়ম না হয় সে বিষয়ে কাজ শুরু করেন। মৃত্যুর পূর্ব পর্যন্ত তিনি দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াই করেছেন।
বক্তারা আরও বলেন, ২০১৭ সালের হাওরে মহাবিপর্যয়ের পর গড়ে ওঠা হাওর বাঁচাও আন্দোলনে সামিল হন বীর মুক্তিযোদ্ধা মালেক হুসেন পীর। তাঁর নেতৃত্বে জেলার বিভিন্ন হাওর পরিদর্শন চলে প্রতি বছর। হাওর দুর্নীতির বিরুদ্ধে তিনি হয়ে উঠেন আরেক বীর যোদ্ধা।
বক্তারা বলেন, মালেক হুসেন পীর এমন একজন মানুষ ছিলেন, যাঁর ব্যক্তিত্বের এক বড় বৈশিষ্ট্য ছিল বিদ্রোহ। আমৃত্যু সংগ্রামী ছিলেন তিনি। নিজের নৈতিক মানদণ্ডের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয় এমন কিছুর মুখোমুখি হলে তিনি সব সময়ই তা প্রত্যাখ্যান করেছেন। যা-কিছু তাঁর কাছে গ্রহণযোগ্য মনে হয়নি, তিনি তার প্রতিবাদ করেছেন।
বক্তারা বলেন, বীর যোদ্ধা মালেক হুসেন পীর নির্লোভ একজন মানুষ ছিলেন। জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত লড়াই করেছেন মানুষের অধিকারের জন্য, কাজ করেছেন মানুষের কল্যাণের জন্য। মালেক হুসেনরা বার বার এ সমাজে ফিরে আসবে না। তাই মালেক হুসেন পীরের আদর্শকে সামনে রেখে আমাদের পথ চলতে হবে। তাঁর অসমাপ্ত কাজ সমাপ্ত করতে আমাদের। এই সমাজ থেকে দুর্নীতি-অনিয়মের শিকড় উপড়ে ফেলতে হবে।
সভায় “মালেক হুসেন পীর স্মারক গ্রন্থ” প্রকাশের সিদ্ধান্ত হয়। স্মারকগ্রন্থ প্রকাশনার দায়িত্ব দেওয়া হয় সাপ্তাহিক স্বজনের ভারপ্রাপ্ত স¤পাদক ম ফ র ফোরকান, হাওর বাঁচাও আন্দোলন কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ স¤পাদক নির্মল ভট্টাচার্য্য, হাওর বাঁচাও কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম সাধারণ স¤পাদক সালেহিন চৌধুরী শুভ, সাংগঠনিক স¤পাদক একে কুদরত পাশা ও দপ্তর স¤পাদক প্রভাষক দুলাল মিয়াকে।

 

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com