1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
শুক্রবার, ১১ জুন ২০২১, ০৫:১৬ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01867-379991, 01716-288845

অবৈধ দখলদারদের হামলায় এসিল্যান্ডসহ আহত ১০

  • আপডেট সময় শুক্রবার, ১১ জুন, ২০২১

বিশেষ প্রতিনিধি ::
মুজিববর্ষের উপহার ভূমিহীন ও গৃহহীনদের পাকা ঘর নির্মাণের লক্ষ্যে সরকারি খাস খতিয়ানভুক্ত পতিত ভূমি প্রভাবশালী মহলের কাছ থেকে উদ্ধার করতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন ভূমি কর্মকর্তা ও সাব ইন্সপেক্টরসহ অন্তত ১০ জন। আত্মরক্ষার্থে দায়িত্বরত আনসার ও পুলিশ সদস্যরা ১৩ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। তাৎক্ষণিক অতিরিক্ত পুলিশ পাঠিয়ে দখলদারদের কবল থেকে সংশ্লিষ্টদের উদ্ধার করা হয়। ঘটনাস্থল থেকে জড়িত থাকার অভিযোগে ৮জনকে আটক করেছে পুলিশ। সরকারি কাজে বাধা ও হামলার ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছে প্রশাসন। বৃহস্পতিবার দুপুরে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার রঙ্গারচর ইউনিয়নের আদারবাজারে এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শী, পুলিশ ও প্রশাসনের সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আরিফ আদনান আদারবাজার সংলগ্ন এলাকায় সরকারের খাস খতিয়ানভুক্ত ২৫ একর জমি উদ্ধার করতে যান। ওখানে মুজিববর্ষ উপলক্ষে ১৫ জন ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে গৃহ নির্মাণের জন্য ৩০ একর জমি চিহ্নিত করার সিদ্ধান্ত হয়েছে। স্থানীয় সরকারের জনপ্রতিনিধি এবং এলাকাবাসী পতিত জমিতে গৃহ নির্মাণের জন্য এই স্থানের প্রস্তাব দেওয়ায় বৃহস্পতিবার দুপুরে সহকারী কমিশনার (ভূমি) জায়গা চিহ্নিত করতে যান। এসময় হরিনাপাটিসহ আশপাশের এলাকার প্রভাবশালী দখলদার পরিবারের নারী-পুরুষ দা, রামদা, লাঠিসোঁটাসহ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে পুলিশ ও সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের উপর হামলা চালায়। তাদের হামলায় ভূমি কর্মকর্তা আরিফ আদনান ও পুলিশের সাব ইন্সপেক্টর জাহাঙ্গীর আলমসহ অন্তত ১০ জন আহত হন। এসময় পুলিশ ও আনসার সদস্যরা আত্মরক্ষার্থে ১৩ রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুঁড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করেন। পরে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জয়নাল আবেদীন ও সদর থানার ওসি সহিদুর রহমানের নেতৃত্বে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ পাঠিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়। হামলার অভিযোগে ৮ জনকে আটক করে পুলিশ।
কিছুক্ষণ পরেই ঘটনাস্থলে ছুটে যান জেলা প্রশাসক মো. জাহাঙ্গীর হোসেন ও পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান। তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে এলাকাবাসীর সঙ্গে কথা বলেন।
রঙ্গারচর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল হাই বলেন, আমরা ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ থেকে এখানে মুজিববর্ষের উপহার গৃহহীনদের ঘর নির্মাণের জন্য সরকারকে প্রস্তাব করেছিলাম। সরকারি খাসভূমিতে সরকার ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য মুজিববর্ষের উপহার হিসেবে পাকা ঘর নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছে। এই কাজে কোন সাধারণ মানুষ বাধা দেয়নি। কিছু দখলবাজ প্রভাবশালী যারা সরকারি জমি অবৈধভাবে দখল করে আছে তারাই প্রশাসনের উপর হামলা চালিয়েছে।
পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান বলেন, সরকারি জমি চিহ্নিত করার সময় কিছু অবৈধ দখলদার জোটবদ্ধ হয়ে বাধা দিয়েছে। তারা সহকারী কমিশনার (ভূমি)সহ পুলিশের সাব ইন্সপেক্টরের উপরও হামলা করেছে। হামলায় জড়িতদের আইনের আওতায় আনা হবে।
জেলা প্রশাসক মো. জাহাঙ্গীর হোসেন বলেন, এই ঘটনায় যারা ইন্ধন দিয়েছে এবং নেপথ্যে কাজ করে মুজিববর্ষের উপহার বাস্তবায়ন কার্যক্রম বন্ধ করতে চায় তাদের চিহ্নিত করতে কাজ শুরু হয়েছে। তিনি বলেন, এখানেই সরকারি খাস ভূমিতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উপহার ১৫টি ঘর নির্মাণ করে দরিদ্র সুবিধাভোগীদের উপহার দেওয়া হবে।

 

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com