1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:০৪ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

পুলিশের সাঁড়াশি অভিযান : ৬ ঘণ্টার মধ্যে অপহৃত শিশু উদ্ধার, অপহরণকারী গ্রেফতার

  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ২৭ এপ্রিল, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার ::
পুলিশের সাঁড়াশি অভিযানে অপহরণের ছয় ঘণ্টার মধ্যে অপহৃত শিশু উদ্ধার হয়েছে। একই সাথে অপহরণকারীকে গ্রেফতার এবং ছিনতাই হওয়া মাইক্রোবাস উদ্ধার করা হয়। সোমবার (২৬ এপ্রিল) বিকেল ৩টার দিকে প্রথমে সিলেটের কদমতলী এলাকায় গাড়ি ফেলে দুষ্কৃতকারীরা শিশু হালিমা নুসরাত উর্মিরাকে (৫) নিয়ে পালিয়ে গেলে সাড়ে ৪টার দিকে ওই শিশুকেও উদ্ধার করা হয়।
ছিনতাই যাওয়া গাড়ির নম্বর ঢাকা মেট্রো চ ৫৩-১২১৫। আর এ গাড়ির ভেতরেই বসে ছিল পাঁচ বছর বয়সী শিশু হালিমা। গাড়ির সঙ্গে তাকেও পাওয়া যাচ্ছিলো না। সে ছাতক উপজেলার গোবিন্দগঞ্জ-সৈদেরগাঁও ইউনিয়নের সুহিতপুর গ্রামের মকরম আলীর কন্যা।
জানা যায়, সোমবার সকাল সোয়া ১০টার দিকে একটি নোহা গাড়ি (নং-ঢাকা মেট্রো-চ – ৫৩-১২১৫) যোগে পরিবারের লোজনদের সাথে উর্মিলা গোবিন্দগঞ্জে আসে। গাড়ি রাস্তার পাশে দাঁড় করিয়ে এবং উর্মিলাকে গাড়িতে রেখে প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র ক্রয় করতে দোকানে যান পরিবারের লোকজন। এসময় শিশু হালিমা নুসরাত উর্মিলা গাড়িতে একাই ছিল। এ সুযোগে ছাতক উপজেলার কালারুকা ইউনিয়নের গৌরিপুর গ্রামের কুটি মিয়ার পুত্র অপহরণকারী রুকন আহমদ চালক সেজে গাড়ি নিয়ে চ¤পট দেয়। পরে চালক ও উর্মিলার পরিবারের লোকজন যথাস্থানে গাড়ি না পাওয়ায় চারিদিকে হৈ-চৈ পড়ে যায়। বিষয়টি তাৎক্ষণিক পুলিশকে অবগত করা হলে মাত্র ৬ ঘণ্টার মধ্যে সিলেট নগরীর গোটাটিকর এলাকার আলাউদ্দিন মিয়ার ভাড়া দেয়া বাসা থেকে শিশু উর্মিলাসহ অপহরণকারী রুকন মিয়াকে আটক করে পুলিশ। ছাতক থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ নাজিম উদ্দিনের নেতৃত্বে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করেন থানার সেকেন্ড অফিসার হাবিবুর রহমান পিপিএম ও এসআই মুহিন উদ্দিন। সহযোগিতায় ছিল সিলেটের দক্ষিণ সুরমা থানা পুলিশ।
দক্ষিণ সুরমা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুল ইসলাম জানান, প্রথমে বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে সিলেট নগরীর কদমতলি এলাকায় গাড়িটি পাওয়া যায়। এসময় স্থানীয়রা গাড়িটিকে ধাওয়ায় করলে দুষ্কৃতকারীরা শিশুকে নিয়ে পালিয়ে যায়। স্থানীয় এলাকাবাসীর তথ্যের ভিত্তিতে আমাদের দক্ষিণ সুরমা থানা এবং ছাতক থানার যৌথ অভিযানে পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার করে। এ ঘটনায় ছাতক উপজেলার কালারুকা ইউনিয়নের গৌরিপুর গ্রামের রোকন আহমদ (২৮)-কে গ্রেফতার করা হয়েছে। সে ওই গ্রামের কুটি মিয়ার ছেলে।
শিশুর বাবা মিজানুর বলেন, প্রয়োজনীয় কিছু জিনিস কিনতে সোমবার দুপুরে স্ত্রী ও শিশুকন্যাকে নিয়ে নিজেই গাড়ি চালিয়ে গোবিন্দগঞ্জ বাজারে যান। মেয়ে ঘুমিয়ে পড়ায় তাকে গাড়িতে রেখেই পাশের একটি মিষ্টির দোকানে যান স্বামী-স্ত্রী। ফিরে এসে দেখেন গাড়িটি নেই। মেয়েকেও কোথাও খুঁজে পাওয়া যায়নি। পরে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে।
এ ব্যাপারে এক প্রেস কনফারেন্সে সুনামগঞ্জের পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান জানান, ছাতক থানা পুলিশ, হাইওয়ে পুলিশ ও সিলেট এসএমপি পুলিশের যৌথ অভিযানে ছিনতাইকারীসহ মেয়েটি উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে। ছিনতাইকারীর বিরুদ্ধে ছাতক থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com