1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ০৮:২২ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

সীমাহীন বিদ্যুৎ ভোগান্তি : আজ বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাও

  • আপডেট সময় বুধবার, ৫ অক্টোবর, ২০১৬

স্টাফ রিপোর্টার ::
একদিকে প্রচন্ড তাপদাহ, আরেকদিকে দিনে ও রাতে সমান তালে বিদ্যুতের লুকোচুরি খেলা। এসবে মানুষের প্রাণ যেন ওষ্ঠাগত। অফিস, বাসা-বাড়ি, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, হাসপাতাল, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান সর্বত্রই সীমাহীন বিদ্যুৎ ভোগান্তি। মাত্রাতিরিক্ত বিদ্যুৎ বিভ্রাটে বিক্ষুব্ধ সুনামগঞ্জ শহরবাসী। এই বিদ্যুৎ ভোগান্তির প্রতিবাদ এবং নিরবচ্ছিন্ন বিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহের দাবিতে বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাওয়ের কর্মসূচি হাতে নেয়া হয়েছে। সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আয়ূব বখত জগলুল জানিয়েছেন, আজ বুধবার বিকেল ৪টায় বিদ্যুৎ অফিস ঘেরাও করা হবে। এই কর্মসূচিতে তিনি সকলকে অংশগ্রহণের আহ্বান জানিয়েছেন।
জানা যায়, গত কয়েকদিন ধরে টানা বিদ্যুৎ বিভ্রাটে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন এ জেলার বাসিন্দারা। প্রতিদিনই নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ করতে ব্যর্থ হচ্ছে বিদ্যুৎ বিভাগ। বিদ্যুৎ না থাকা বা গ্রাহক ভোগান্তি বিষয়ে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, লোডশেডিং নয় বিদ্যুৎ সঞ্চলন লাইনে ত্রুটি ও দুর্বল বিতরণ ব্যবস্থার কারণে প্রতিদিন ঘণ্টার পর ঘণ্টা বিদ্যুৎহীন থাকছেন গ্রাহকরা।
এদিকে বিদ্যুৎ ভোগান্তিতে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন সুনামগঞ্জ শহরবাসী। শহরের ষোলঘর এলাকার বাসিন্দা নজরুল ইসলাম বলেন, একদিকে তাপদাহ, অন্যদিকে বিদ্যুৎ বিভ্রাট। দুয়ে মিলে আমরা সীমাহীন ভোগান্তির মধ্যে রয়েছি। বিদ্যুতের এই বেহাল অবস্থা কাম্য নয়। এর প্রতিকার হওয়া উচিত।
আলফাত স্কয়ার এলাকার ব্যবসায়ী শ্যামল রায় জানান, ঘণ্টার পর ঘণ্টা বিদ্যুৎ না থাকায় ভোগান্তিতে পড়তে হয়। ব্যবসা মন্দাভাব বিরাজ করছে।
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকেও বিদ্যুৎ ভোগান্তি নিয়ে লেখালেখি হচ্ছে। বিশিষ্ট লেখক সুখেন্দু সেন তাঁর ফেসবুক স্ট্যাটাসে লিখেছেন- “লোডশেডিংয়ের একটা মাত্রা আছে। আছে নিয়মও। বিদ্যুতের ঘাটতি থাকলে তা হবেই। নির্দিষ্ট সময়ের জন্য তা মেনে নেয়া যায়। প্রস্তুতিও থাকে। কিন্তু আমাদের চপলা বিদ্যুৎ যে বাতাসের এতটুকুন ছোঁয়াতেই মরমে মরে যায়, বৃষ্টিতে চুপসে যায়, শীতে কুকড়ে যায়, ঝড়ে উবে যায় আর পূর্বপুরুষের ডাক শুনলে তো পড়িমরি করে কোথায় যে ছুটে পালায় খোঁজে বের করে কার সাধ্যি। আর কোন কারণ নেই- তারে কাক বসলেও লোডশেডিং। বিদ্যুতের এত উন্নয়নের সকল হিসেব-নিকেশ ছাতক এসেই নাকি হুমড়ি খেয়ে পড়ে থাকে।’
মো. মুরশেদ আলম তার মন্তব্যে লিখেছেন, শহরে এত বড় বড় ক্ষমতবান মানুষের অবস্থান তথাপি কোন সমাধান হচ্ছে না কেন তা ভেবে পাচ্ছিনা।
নিয়মিত বিদ্যুৎ বিভ্রাট বিষয়ে জানতে সুনামগঞ্জ পিডিবি’র নির্বাহী প্রকৌশলী মো. কামরুজ্জামানের মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করলেও তিনি কল রিসিভ করেননি।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com