1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
শনিবার, ০৮ মে ২০২১, ০১:৩০ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01867-379991, 01716-288845

অর্থদন্ড পরিশোধে ফের আদালতের অনুমতি লাগবে না

  • আপডেট সময় বুধবার, ২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৬

সুনামকণ্ঠ ডেস্ক ::
জেল-জরিমানা উভয়দন্ডে দন্ডিত আসামির জরিমানার অর্থ পরিশোধে ফের আদালতের অনুমতি নেওয়ার শর্ত বিলোপ করে দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্ট। মঙ্গলবার হাই কোর্ট বিভাগের রেজিস্ট্রার আবু সৈয়দ দিলজার হোসেন স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ কথা জানানো হয়।
এতে বলা হয়, “কোনো আদালতে কারাদন্ড ও অর্থদন্ড একত্রে আরোপ করা হলে দন্ডপ্রাপ্ত আসামির প্রতিনিধি বা নিকটাত্মীয় আরোপিত অর্থ কারাভোগ শেষ হওয়ার পূর্বে বা পরে যে কোনো সময় সংশ্লিষ্ট আদালতের পূর্বানুমতি ছাড়াই বাংলাদেশ ব্যাংক বা সোনালী ব্যাংকে ট্রেজারি চালানের মাধ্যমে জমা প্রদান করতে পারবেন।”
রায় যে জেলার আদালতের কাছ থেকে আসে, সেই জেলায় বা আসামি যে জেলার কারাগারে রয়েছেন, সেই জেলার ব্যাংকে এই অর্থ জমা দিতে হবে।
হাই কোর্টের রেজিস্ট্রার দিলজার হোসেন বলেন, “পূর্বানুমতির শর্ত থাকায় দেখা যেত, কোনো বন্দি তার কারাদন্ড ভোগ শেষে এই প্রক্রিয়া শুরু করত।
“এই প্রক্রিয়া শেষ করতে অর্থদন্ড অনাদায়ে কারাদন্ডের একাংশ অনেক সময় তাকে ভোগ করে ফেলতে হত। এতে তারা এক ধরনের ভোগান্তিতে পড়তেন। এই ভোগান্তির অবসান করতে নির্দেশনা দেওয়া হল।”
এখন অর্থদন্ড ট্রেজারি চালানের মাধ্যমে ব্যাংকে জমা দেওয়ার পর চালানের কপি বন্দি যে কারাগারে রয়েছেন, সরাসরি সেই কারাগার কর্তৃপক্ষের কাছে দাখিল করতে হবে। সংশ্লিষ্ট কারা কর্তৃপক্ষ তখন চালানটির সত্যতা এবং সাজা পরোয়ানায় উল্লিখিত অর্থদন্ডের পরিমাণ যাচাই করবেন। এরপর কারা কর্তৃপক্ষ সন্তুষ্ট হলে বিধি অনুসারে বন্দিকে মুক্তি দেবে এবং বিষয়টি বিচারিক আদালতকে জানাবে।
পূর্বানুমতির কারণে বন্দিদের ভোগান্তির বিষয়টি নজরে আসার পর প্রধান বিচারপতি এই সমস্যা নিরসনের উদ্যোগ নেন। এরপর সুপ্রিম কোর্টের ফুল কোর্ট সভার সিদ্ধান্ত অনুসারে এই প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। এর অনুলিপি কারা মহাপরিদর্শকসহ অন্য সব কারা কর্তৃপক্ষ, বাংলাদেশের সব বিচারিক আদালত ও ব্যাংকে পাঠানো হচ্ছে।
পূর্বানুমতির কারণে বন্দিদের মুক্তি পেতে যেমন দেরি হত, তেমনি ধারণ ক্ষমতার বেশি বন্দি নিয়ে থাকা কারাগারের উপরও চাপ বাড়াত।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com