1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
রবিবার, ০৩ জুলাই ২০২২, ০৮:১৬ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

টাঙ্গুয়ার হাওর : পর্যটন সম্ভাবনা প্রচারে নৌযাত্রার উদ্যোগ

  • আপডেট সময় মঙ্গলবার, ৩০ আগস্ট, ২০১৬

বিশেষ প্রতিনিধি ::
আন্তর্জাতিক রামসার সাইট খ্যাত জীববৈচিত্র্য সমৃদ্ধ টাঙ্গুয়ার হাওরের পর্যটন সম্ভাবনা দেশ-বিদেশে ছড়িয়ে দিতে ও পর্যটন উপযোগী অবকাঠামো গড়ে তোলার দাবিতে আগামী ১৬-১৭ সেপ্টেম্বর টাঙ্গুয়ার হাওরে নৌযাত্রা করবে তাহিরপুর উপজেলা পরিষদ। এতে থাকবে ৫টি বিরাট লঞ্চসহ প্রায় অর্ধ শতাধিক ইঞ্জিন চালিত নৌকা। দেশের যে কোন স্থান থেকেই এই ‘নাও যাত্রা’য় অংশ নেওয়ার জন্য পর্যটক ও ভ্রমণপিয়াসীদের আহ্বান জানিয়েছে উপজেলা পরিষদ।
তাহিরপুর উপজেলা পরিষদের পরিকল্পনায় দু’দিনের ভ্রমণোৎসবে টাঙ্গুয়ার হাওরের মধ্যখানে ভাসমান মঞ্চ করে আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন থাকবে। শেষের দিন সীমান্ত নদী যাদুকাটা সংলগ্ন বড়গোপটিলায় একই ব্যবস্থা থাকবে।
সোমবার বিকেলে উপজেলা পাবলিক লাইব্রেরি মিলনায়তনে প্রশাসনের কর্মকর্তা ও স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত প্রতিনিধিরা বৈঠকে এই সিদ্ধান্ত নেন। উৎসবে স্থানীয় সাংসদ মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, জেলা প্রশাসক শেখ রফিকুল ইসলাম, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হারুন অর রশিদসহ প্রশাসনের শীর্ষ কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত থাকবেন বলে জানা গেছে।
বৈঠক সূত্রে জানা যায়, প্রতি বছরই টাঙ্গুয়ার হাওরে বর্ষা-শীত মওসুমে দেশের নানা প্রান্ত থেকে হাজারো মানুষ সপরিবারে বেড়াতে আসেন। তাদের যাতায়াত ও থাকা-খাওয়ার ভালো ব্যবস্থা না থাকায় টাঙ্গুয়ার হাওরের পর্যটন সম্ভাবনা কাজে লাগানো যাচ্ছেনা। তাছাড়া দীর্ঘদিন ধরে পর্যটন অবকাঠামো গড়ে তোলার আহ্বান জানানো হলেও সেটা বাস্তবায়ন হচ্ছে না। ফলে টাঙ্গুয়ার বৈচিত্র্যময় সৌন্দর্য উপভোগ থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন দেশ-বিদেশের ভ্রমণার্থীরা। আগামী ১৬-১৭ সেপ্টেম্বর পর্যটন প্রচারণার লক্ষ্যে এবং টাঙ্গুয়ার হাওরকেন্দ্রিক পর্যটক অবকাঠামো গড়ে তোলার দাবিতে এই নাওযাত্রা অনুষ্ঠিত হবে। প্রায় অর্ধ শতাধিক নৌকা যোগে টাঙ্গুয়ার হাওরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ এলাকা পরিদর্শন করা হবে। উপস্থিতিদের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেওয়া হবে সৌন্দর্য্য ও বৈচিত্র্যের। উৎসবের প্রথম রাত টাঙ্গুয়ার হাওরের মধ্যখানে ভাসমান মঞ্চে খাটানো হবে। রাতে থাকবে বারবিকিউ ও হাওরাঞ্চলের গানের অনুষ্ঠান। তরুণ কণ্ঠশিল্পী আশিক ও তার দল গানের তুফান তোলবে টাঙ্গুয়ার বুকে। পরের দিন হাওর ঘুরে নৌবহর লাগবে এসে রূপের নদী যাদুকাটায়। এখানে ঘনসবুজের খাড়া ও ঢালু টিলা বড়গোপটিলা (বারেকের টিলা) মঞ্চ করে আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হবে। বাংলাদেশের যে কোন প্রান্তের ভ্রমণার্থীদের দুই দিনের উৎসবে অংশ নেওয়ার জন্য উপজেলা পরিষদের পক্ষ থেকে আহ্বান জানানো হয়েছে। যারা সপরিবারে আসতে আগ্রহী তাদের জন্যও পারিবারিক বিশেষ ব্যবস্থা থাকবে বলে আয়োজকরা জানিয়েছেন। উৎসবকালীন দুই দিনের আলোচনায় মূল্যবান মতামত নিয়ে সরকারের কাছে পর্যটন বিষয়ক সুপারিশ জানাবেন আয়োজকরা।
ভ্রমণোৎসবের পরিকল্পক উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান কামরুল বলেন, প্রতিদিন শত শত মানুষ টাঙ্গুয়ার হাওর দেখতে আসেন। পর্যটন অবকাঠামোগত সমস্যার কারণে তারা টাঙ্গুয়ার পুরো সৌন্দর্য্য উপভোগ করতে পারেন না। তাদের থাকা-খাওয়ার ব্যবস্থা নেই। আমরা টাঙ্গুয়ার হাওরে এই নাওযাত্রার মাধ্যমে একদিকে টাঙ্গুয়ার হাওরের পর্যটন সম্ভাবনাকে তুলে ধরতে চাই, অন্যদিকে পর্যটন অবকাঠামো নির্মাণের জন্য সরকারের কাছে আহ্বান জানাব। প্রায় ৫০টি নৌকার মাধ্যমে এই নাওযাত্রার উদ্যোগ নিয়েছি আমরা। বাংলাদেশের যে কোন প্রান্ত থেকেই নামমাত্র খরচে এই উৎসবে যোগ দিতে পারবেন যে কেউ।
বৈঠকে উপজেলা পরিষদের কর্মকর্তাবৃন্দসহ স্থানীয় সরকারের নির্বাচিত প্রতিনিধি ও উপজেলার সুধীজন উপস্থিত ছিলেন। তাহিরপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কামরুজ্জামান কামরুলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) রফিকুল ইসলাম, তাহিরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ শহীদ উল্লাহ, উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আলহাজ্ব আবুল হোসেন খাঁন, সহ-সভাপতি নুরুল আমীন, আলী মুর্তুজা, সাবেক সদর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুল জলিল তালুকদার, উপজেলা আ.লীগ সাধারণ সম্পাদক অমল কান্তি কর, সদর ইউপি চেয়ারম্যান বোরহান উদ্দিন, উপজেলা আওয়ামী লীগ দপ্তর সম্পাদক রমেন্দ্র নারায়ণ বৈশাখ, উপজেলা ক্রীড়া সংস্থা সাধারণ সম্পাদক হাফিজ উদ্দিন, উপজেলা আ.লীগ সাংগঠনিক সম্পাদক মোদাচ্ছির আলম সুবল, আলমগীর খোকন, তাহিরপুর উপজেলা বিএনপি সাধারণ সম্পাদক রুহুল আমিন, বাদাঘাট ইউপি সাবেক চেয়ারম্যান নিজাম উদ্দিন, দক্ষিণ শ্রীপুর ইউপি চেয়ারম্যান বিশ্বজিত সরকার, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা বিপ্লব সরকার, সাংবাদিক বাবরুল হাসান বাবলু, শিক্ষক শেখর রায় প্রমুখ। সভায় টাঙ্গুয়ার হাওর উৎসব অনুষ্ঠান সফল করার লক্ষ্যে বিভিন্ন ধরনের ১০টি কমিটি ও উপ-কমিটি গঠন করা হয়।
উল্লেখ্য, ৯৭.২৯ ব.কি. আয়তনের এই অনন্য জলাভূমিতে ৫২টি বিল, ১২০টি কান্দা-জাঙ্গাল রয়েছে। ১৪১ প্রজাতির মাছ, ২০০ প্রজাতির উদ্ভিদ, ২১৯ প্রজাতির পাখি, ৯৮ প্রজাতির পরিযায়ী পাখি, ১২১ প্রজাতির দেশীপখি, ২২ প্রজাতির পরিযায়ী হাঁস, ১৯ প্রজাতির স্তন্যপ্রায়ী পাণী, ২৯ প্রজাতির সরিসৃপ, ১১ প্রজাতির উভচর প্রাণীসহ অসংখ্য স্থলজ, জলজ প্রাণী ও জীববৈচিত্র্য রয়েছে।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com