1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
রবিবার, ০৩ জুলাই ২০২২, ০৯:১৮ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

প্রশাসনিক বিকেন্দ্রীকরণ একান্তভাবে প্রয়োজন : প্রধানমন্ত্রী

  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৬

সুনামকণ্ঠ ডেস্ক ::
বুধবার নিজ কার্যালয়ে নবগঠিত ময়মনসিংহ বিভাগের উন্নয়ন পরিকল্পনা সংক্রান্ত সভায় ‘কিছু হলেই রাজধানীতে ছুটে আসার’ সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, “১৬ কোটি মানুষের কাছে সেবা পৌঁছে দিতে হলে আমাদের ক্ষমতাকে আরও বিকেন্দ্রীকরণ করা একান্তভাবে প্রয়োজন।”
প্রশাসনিক বিকেন্দ্রীকরণের ওপর গুরুত্বারোপ পরে তিনি বলেন, দুই দশক পর কী হতে পারে- তা মাথায় রেখে শহর বা অবকাঠামো উন্নয়ন পরিকল্পনা করতে হবে।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, তাৎক্ষণিক প্রয়োজন মেটানোর মানসিকতা ত্যাগ করে চিন্তাটাকে সবসময় আরও স্বচ্ছ, সুদূরপ্রসারী করতে হবে। তাহলে পরবর্তীতে ঝামেলাগুলি কম হবে।
এক্ষেত্রে চীন কীভাবে কাজ করেছে সে দৃষ্টান্ত তুলে ধরেন সরকারপ্রধান। “এই দূরদৃষ্টিটা তাদের (চীনাদের) আছে। অর্থাৎ যে কোনো পরিকল্পনা নিতে গেলে আমাদের দূরদৃষ্টিস¤পন্ন হতে হবে।”
শেখ হাসিনা ক্ষমতা বিকেন্দ্রীকরণ ও উন্নয়নের সুবিধা তৃণমূলে নিয়ে যেতে নতুন নতুন বিভাগ সৃষ্টির কথাও উল্লেখ করেন।
দেশে বর্তমানে আটটি বিভাগ রয়েছে। আরও বিভাগ করা হবে বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন তিনি। “ঢাকা বিভাগকে ভেঙে ময়মনসিংহ করা হয়েছে। ভবিষ্যতে পরিকল্পনা আছে ঢাকা বিভাগটাকে আরেকটু ছোট করে দেওয়া।”
প্রধানমন্ত্রী জানান, সরকারের ‘দায়িত্ব’ বাংলাদেশের মানুষের কাছে সেবা পৌঁছে দেওয়া। তার নেতৃত্বে সরকার গঠনের পর থেকে স্থানীয় সরকারগুলোকে শক্তিশালী করার মাধ্যমে জনগণের কাছে সেবা পৌঁছে দেওয়ার কাজ চলছে। “এখন অনেক শহর এমন উন্নত হয়ে গেছে যে, ট্রাফিক জ্যাম হচ্ছে, বাইপাস করতে হচ্ছে। এসব চিন্তা-ভাবনা আমাদের পূর্ব থেকেই করা উচিত। ২০ বছর, ২৫ বছর পরে কী হবে সেটা মাথায় রেখেই আমাদের প্রত্যেকটা পরিকল্পনা নেওয়া উচিত বলে মনে করি। এটা আপনাদের কাছে আমার অনুরোধ, যখনই আমরা যে পরিকল্পনা নেব, এটা মাথায় রাখবেন যে, আজ থেকে বিশ বছর পর কতটা উন্নতি হতে পারে, জনসংখ্যা কতটা হবে এবং কী হতে পারে। অর্থনৈতিক কর্মকান্ড বাড়বে- সে কথা মাথায় রেখেই কিন্তু আমাদের পরিকল্পনা নেওয়া উচিত।”
স্থানীয় সরকারকে আরও শক্তিশালী করার আগ্রহের কথা জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “কোনো একটা কিছু হলেই ঢাকা ছুটে আসতে হবে কেন। এভাবে তো মানুষের সেবাটা নিশ্চিত করা যাবে না। এজন্য ক্ষমতাটাকে বিকেন্দ্রীকরণ করা একান্তভাবে প্রয়োজন।”
নতুন বিভাগীয় শহর গড়ে তোলার ক্ষেত্রে নিজের পরিকল্পনার কথাও তুলে ধরেন শেখ হাসিনা।
তিনি জানান, আগেই গড়ে ওঠা সিলেট শহরকে রেখে সুরমার ওপাড়ে নতুন বিভাগীয় শহর গড়ে তোলার নির্দেশ তিনি দিয়েছিলেন। রংপুরেও নতুন জায়গায় বিভাগীয় শহর গড়ে তোলার নির্দেশনা রয়েছে।
একইভাবে ময়মনসিংহের পুরনো শহর রেখেই ব্রহ্মপুত্র নদের ওপাড়ে নতুন বিভাগীয় শহরের স্থাপনা গড়ে তোলার পরিকল্পনার কথা জানান প্রধানমন্ত্রী।
“ময়মনসিংহ শহর একটা গুরুত্বপূর্ণ শহর ছিল। জায়গা পছন্দ করে দিয়েছি; আধুনিক, সুন্দর একটা শহর গড়ে উঠুক।”
শেখ হাসিনা বলেন, “শহর বাড়তে থাকে। একসময় ঢাকা বিশ্ববিদল্যায় ঢাকা শহরেরর বাইরে করা হয়েছিল। মহাখালীর টিবি হাসপাতাল শহরের বাইরে গ্রামে করা হয়েছিল। ১৯৬১ সালে আমরা যখন ধানমন্ডি আসি আশপাশে তখনও ধানক্ষেত। “অর্থনৈতিক কর্মকান্ড, সামাজিক কর্মকান্ড বিস্তৃত হয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই শহর গড়ে উঠছে।”
এসময় নতুন আবাসিক এলাকা বা শিল্পাঞ্চল হলে সেখানে বৃষ্টির পানি ধরে রাখতে জলাধার তৈরির নির্দেশও দেন তিনি।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com