1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ০৩:০৮ পূর্বাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01711-368602

সংসদে ৬০টি আসন চায় হিন্দু মহাজোট

  • আপডেট সময় শুক্রবার, ১৭ জুন, ২০১৬

সুনামকণ্ঠ ডেস্ক ::
জাতীয় হিন্দু মহাজোট পৃথক নির্বাচন ব্যবস্থা, পৃথক মন্ত্রণালয় ও সংসদে ৬০টি সংরক্ষিত আসনের দাবি জানিয়েছে বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোট। শুক্রবার দুপুরে ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটিতে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের পক্ষ থেকে এ দাবি জানানো হয়। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন সংগঠনের মহাসচিব গোবিন্দ চন্দ্র প্রামাণিক।
তিনি বলেন, ‘যখন সংখ্যালঘুদের ওপর হামলা বা নির্যাতন হয়, তখন প্রকৃত অপরাধীদের শাস্তি হয় না। যার ফলে সংখ্যালঘুদের ওপর নির্যাতন দিন দিন বাড়ছে।’
তিনি বলেন, ‘হিন্দু সম্প্রদায়ের অস্তিত্ব রক্ষা ও গণতন্ত্রের স্বার্থে জাতীয় সংসদে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিত্ব সুনিশ্চিত করতে হবে। আর সে কারণেই সরকারের কাছে আমাদের তিন দফা দাবি হচ্ছে- আগামী ১ জুলাইয়ের মধ্যে দেশে সংঘটিত হিন্দু সম্প্রদায়ের লোকদের হত্যা ও এদের ওপর নির্যাতনকারীদের গ্রেফতার করে দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের মাধ্যমে বিচার করতে হবে, জাতীয় সংসদসহ সব নির্বাচন চলাকালে ও নির্বাচন পরবর্তী হিন্দু সম্প্রদায়ের ওপর সহিংসতা ও নির্যাতন রোধ করতে হবে, জাতীয় সংসদে হিন্দু সম্প্রদায়ে প্রতিনিধিত্ব নিশ্চিত করতে ৬০টি সংরক্ষিত আসন ও পৃথক নির্বাচন ব্যবস্থা প্রতিষ্ঠা করতে হবে, একটি সংখ্যালঘু বিষয়ক মন্ত্রণালয় প্রতিষ্ঠা এবং সংখ্যালুদের মধ্য থেকে সমহারে মন্ত্রী নিয়োগ করতে হবে।’
দাবি না মানলে কর্মসূচির হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি বলেন, ‘আগামী পহেলা জুলাইয়ের মধ্যে দাবি বাস্তবায়নের সু¯পষ্ট ঘোষণা না দিলে ১৬ সেপ্টেম্বর ঢাকাসহ সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করা হবে। পরে আরও কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।’
তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, ‘হিন্দু সম্প্রদায় মনে করে, প্রকৃত অপরাধীদের শাস্তি না হওয়ায়, ইউনিয়ন পরিষদ ও পৌরসভাসহ জাতীয় সংসদে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রতিনিধিত্ব না থাকায় এবং ধর্মীয় আদর্শগত ও রাজনৈতিক কারণের হিন্দু সম্প্রদায় বার বার আক্রান্ত হচ্ছে।’
তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশে সংখ্যালঘু নির্যাযতন নিয়ে ব্রিটিশ পার্লামেন্ট এবং যুক্তরাষ্ট্রের কংগ্রেসে শুনানি ও প্রস্তাব পাস হলেও, লজ্জার বিষয় হচ্ছে, যারা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে এ সরকারকে ভোট দিয়েছে, তাদের ওপর নির্যাতন বা হত্যা বন্ধে কোনও ভূমিকা রাখা হয়নি।’
সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন হিন্দু মহাজোটের নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট দীনবন্ধু রায়, ড. অচিন্ত কুমার মন্ডল, ড. সোনালী দাস, ডা. এম কে রায় প্রমুখ।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com