1. dailysunamkantha@gmail.com : admin2017 :
  2. editor@sunamkantha.com : Sunam Kantha : Sunam Kantha
মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১, ০৮:৩৩ অপরাহ্ন
ঘোষণা ::
সুনামগঞ্জ জেলার জনপ্রিয় সর্বাধিক পঠিত পত্রিকা সুনামকন্ঠে আপনাকে স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য সকলকে আন্তরিক অভিনন্দন। আমাদের পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দিতে যোগাযোগ করুন - 01867-379991, 01716-288845

মুফতি হান্নানসহ তিনজনের ফাঁসি বহাল রেখে পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ

  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ২৮ এপ্রিল, ২০১৬

সুনামকণ্ঠ ডেস্ক ::
বাংলাদেশে নিযুক্ত সাবেক ব্রিটিশ হাইকমিশনার আনোয়ার চৌধুরীর ওপর হামলার ঘটনায় মুফতি হান্নানসহ ৩ জনের ফাঁসি ও ২ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ডের পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ করেছেন হাইকোর্ট।
হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট বেঞ্চের বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি আমির হোসেনের স্বাক্ষরের পর বৃহ¯পতিবার ১৬৭ পৃষ্ঠার এ রায় প্রকাশ করা হয়।
ওই আদালতের ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল শেখ এ কে এম মনিরুজ্জামান কবির সাংবাদিকদের বলেন, ‘এই পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশের ফলে আসামিদের দন্ড কার্যকরে আইনগত কোনও বাধা থাকল না। তবে আসামিরা যদি হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেন সেক্ষেত্রে দন্ড কার্যকর স্থগিত থাকবে।’
এর আগে গত ১১ ফেব্রুয়ারি জেল আপিল ও ডেথ রেফারেন্সের শুনানি শেষে মুফতি হান্নানসহ ৩ জনের ফাঁসি ও ২ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ডের রায় বহাল রাখেন হাইকোর্ট।
প্রসঙ্গত, ২০০৪ সালে ২১ মে সিলেটের হয়রত শাহজালালের মাজারে তৎকালীন ব্রিটিশ হাইকমিশনার আনোয়ার চৌধুরীর ওপর গ্রেনেড হামলা করা হয়। এ হামলায় আনোয়ার চৌধুরী, সিলেট জেলা প্রশাসকসহ প্রায় অর্ধ-শতাধিক ব্যক্তি আহত হয় এবং পুলিশের দুই কর্মকর্তাসহ তিনজন নিহত হয়।
ঘটনার দিন অজ্ঞাতনামা আসামির বিরুদ্ধে মামলা করে কোতোয়ালী থানা পুলিশ। মামলার তদন্ত শেষে ২০০৭ সালের ৩১ জুলাই মুফতি হান্নানসহ চারজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। এরপর স¤পূরক অভিযোগপত্র দিয়ে মাঈন উদ্দিন ওরফে আবু জান্দালের নাম অন্তর্ভুক্ত করে আবার অভিযোগ গঠন করা হয়।
নি¤œ আদালতে মামলার বিচার শেষে ২০০৮ সালের ২৩ ডিসেম্বর বিচারিক আদালত মুফতি হান্নান, শরীফ শাহেদুল আলম ওরফে বিপুল ও দেলোয়ার হোসেন ওরফে শিপনকে মৃত্যুদন্ড দেন। আর মহিবুল্লাহ ওরফে মফিজুর রহমান ওরফে মফিজ এবং মুফতি মঈনউদ্দিন কে যাবজ্জীবন কারাদন্ড দেন।
নিয়ম অনুসারে মৃত্যুদন্ড অনুমোদন করতে প্রয়োজনীয় নথি ডেথ রেফারেন্সের জন্য হাইকোর্টে আসে। পাশাপাশি ২০০৯ সালে আসামিরা জেল আপিলও করেন আসামিরা। প্রায় সাত বছর পর গত ৬ জানুয়ারি এ মামলায় হাইকোর্টে শুনানি শুরু হয়ে ৩ ফেব্রুয়ারি তা শেষ হয়।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

© All rights reserved © 2016-2021
Theme Developed By ThemesBazar.Com