বুধবার, ০৮ এপ্রিল ২০২০, ০২:৪৯ পূর্বাহ্ন

Notice :

তথ্য প্রদানে হয়রানি করা যাবে না : জেলা প্রশাসক

স্টাফ রিপোর্টার ::
বর্তমানে তথ্যের অবাধ প্রবাহের যুগে সেবাগ্রহিতাদের সেবা ও তথ্য প্রাপ্তিতে কোন হয়রানি বা অসহযোগিতা করা যাবে না বলে উল্লেখ করেছেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল আহাদ। ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি) এর সহযোগিতায় এবং জেলা প্রশাসন, সুনামগঞ্জ ও সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক), সুনামগঞ্জ-এর আয়োজনে সুনামগঞ্জ ঐতিহ্য জাদুঘর প্রাঙ্গণে বৃহস্পতিবার সকালে ‘তথ্যমেলা’র উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের আলোচনায় তিনি এ কথা বলেন।
“তথ্যই শক্তি, জানবো জানাবো, দুর্নীতি রুখবো” প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে সুনামগঞ্জে দিনব্যাপী তথ্যমেলার প্রধান অতিথি সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল আহাদ উদ্বোধন পরবর্তী “দুর্নীতি প্রতিরোধ ও সুশাসন প্রতিষ্ঠায় তথ্য অধিকার আইন” শীর্ষক আলোচনা সভায় আরও বলেন, এখন দেশের প্রত্যন্ত যে কোন অঞ্চল হতে জেলা প্রশাসকদেরকে জনগণ সেবার জন্য যোগাযোগ করতে পারছে, তথ্য জানতে পারছে এবং মোবাইলে দুর্নীতির রিপোর্ট করছে। যা আমাদেরকে সোনার বাংলা গড়তে সহযোগিতা করছে। সরকারি-বেসরকারি সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠানে যাঁরাই কর্মরত আছেন তাঁরা যদি নিজেদের দায়িত্ব-কর্তব্য যথাযথভাবে পালন করেন তাহলে সেবাপ্রার্থী জনগণ কখনো হয়রানির শিকার হবেন না। প্রতিটি দপ্তরে বিনা বাধায়, বিনা হয়রানিতে বিনামূল্যে সেবাপ্রার্থীদের প্রয়োজনীয় সেবা প্রদানের বিষয়টি নিশ্চিত করতে হবে।
তিনি আরও বলেন, তথ্য অধিকার আইন স¤পর্কে সর্বস্তরে ব্যাপক সচেতনতা সৃষ্টি করতে হবে। এই আইনের সুফল যেন জনগণ পায়। তথ্যের অবাধ প্রবাহ নিশ্চিত হলে দুর্নীতি কমবে। এ জন্য সব কাজে নীতি, নৈতিকতা ও শুদ্ধাচারের বিষয়টিকে গুরুত্ব দিতে হবে।
আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান পিপিএম বলেন, দায়িত্বশীল ব্যক্তিদের সততা ও মমতা থাকতে হবে। এই দুটি না থাকলে আপনি মানুষকে সেবা দিতে পারবেন না। সেবার মানসিকতা থাকলে যে কোনো দপ্তরে মানুষজন গিয়ে উপকার পাবে। সততা এবং মমতাকে সেবার অন্যতম পন্থা বলেও তিনি উল্লেখ করেন।
আলোচনা সভায় অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিসস্ট্রেট মোহাম্মদ সুহেল মাহমুদ ‘তথ্য অধিকার আইন ২০০৯’ এর দুর্নীতিরোধে বিশেষ ভূমিকা ও গুরুত্বের কথা উল্লেখ করেন।
সনাক সুনামগঞ্জের সভাপতি ধূর্জটি কুমার বসুর সভাপতিত্বে এবং সহ-সভাপতি অ্যাড. খলিল রহমানের সঞ্চালনায় এতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন সনাক সদস্য নুরুর রব চৌধুরী।
এ ছাড়াও অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন সুনামগঞ্জ সনাকের সহ-সভাপতি কানিজ সুলতানা।
আলোচনা সভা শেষে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আব্দুল আহাদ দুর্নীতিবিরোধী গণস্বাক্ষর সংগ্রহ অভিযানে স্বাক্ষর করেন এবং বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠানসমূহের স্টল পরিদর্শন করেন।
তথ্যমেলায় আলোচনা পর্বের পর ১০টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে দুর্নীতিবিরোধী কুইজ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।
তথ্য মেলায় সনাক সুনামগঞ্জের ইয়েস গ্রুপ পরিচালিত তথ্য ও পরামর্শ ডেস্ক থেকে তথ্য অধিকার আইন, ২০০৯ সম্পর্কে প্রাথমিক ধারণা অর্জনের পাশাপাশি তথ্য প্রাপ্তির আবেদন ফরম পূরণের কৌশল স¤পর্কে হাতে-কলমে শেখানো হয়। এতে সরকারি-বেসরকারি অংশগ্রহণকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে জেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়, বাংলাদেশ পল্লী উন্নয়ন বোর্ড (বিআরডিবি), বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প কর্পোরেশন (বিসিক), বন্ধু সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার সোসাইটি, বাংলাদেশ ফলিত পুষ্টি গবেষণা ও প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট (বারটান), উপজেলা ভূমি অফিস (সুনামগঞ্জ সদর), বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটি (বিআরটিএ), জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ, কৃষি বিপণন অধিদপ্তর, জেলা প্রশাসন, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স, গণপূর্ত বিভাগ, ইসলামিক ফাউন্ডেশন, খাদ্য বিভাগ, আয়কর অফিস, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর, বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ড, আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস, পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি, সমাজসেবা কার্যালয়, জেলা তথ্য অফিস, তথ্য কেন্দ্র (দক্ষিণ সুনামগঞ্জ), জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস, জেলা সঞ্চয় অফিস, বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন্স কো¤পানি লিমিটেড অন্যতম।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী