বুধবার, ০৩ জুন ২০২০, ০২:৫২ অপরাহ্ন

Notice :

সিটিজেন চার্টার দৃশ্যমান স্থানে স্থাপনের পরামর্শ

স্টাফ রিপোর্টার ::
নাগরিক সনদ (সিটিজেন চার্টার) হচ্ছে সেবার মানোন্নয়নের লক্ষ্যে কোন সেবা প্রতিষ্ঠানের উদ্যোগে জনগণের অংশগ্রহণের মাধ্যমে প্রণীত এমন একটি দলিল বা ঘোষণাপত্র যাতে উক্ত সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান কাদের কি ধরনের সেবা প্রদান করবে, কি পরিমাণ প্রদান করবে, কত সময়ের মধ্যে প্রদান করবে, কোন ধরনের সেবা পেতে কি পরিমাণ খরচ হবে এবং যথাযথভাবে সেবা না পেলে তার প্রতিকারের জন্য জনগণ কোথায় ও কি প্রক্রিয়ায় অভিযোগ দাখিল করবে তার বিস্তারিত বর্নণা লিপিবদ্ধ করা হয়। সুনামগঞ্জের অনেক সেবা প্রতিষ্ঠানে এই সিটিজেন চার্টার দৃশ্যমান স্থানে রাখা হয়না বলে অভিযোগ রয়েছে। তাই সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা প্রশাসনের সাথে সচেতন নাগরিক কমিটি (সনাক)-এর মতবিনিময় সভায় সিটিজেন চার্টার দৃশ্যমান স্থানে স্থাপনের পরামর্শ দেয়া হয়েছে।
মঙ্গলবার সকালে সনাক, সুনামগঞ্জ কার্যালয়ে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়। সেবার মানোন্নয়নের লক্ষ্যে অনুষ্ঠিত সভায় তথ্যের উন্মুক্ততা, সেবাপ্রদান ও জনঅংশগ্রহণ নিশ্চিতকরণ, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা না থাকাকে উন্নয়নের মূল সমস্যা উল্লেখ করে সেসব উত্তরণে করণীয় নির্ধারণ করে বক্তারা সুনামগঞ্জ সদর উপজেলাকে বাংলাদেশের একটি মডেল উপজেলা হিসেবে গড়ে তোলার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। সভায় সনাক ও প্রশাসনের সহযোগিতার ক্ষেত্র নিরূপণ করে সনাকের পক্ষ হতে প্রশাসনকে বিভিন্ন জনবান্ধব প্রকল্প গ্রহণের পরামর্শ প্রদান করা হয়।
সভায় সনাক ও প্রশাসন উভয়ের বিভিন্ন কাজের স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করতে বিভিন্ন পরামর্শ তুলে ধরা ও পারস্পরিক সহযোগিতার আশ্বাস প্রদান করা হয়। সরকারি-বেসরকারি অফিস সমূহে অভিযোগ বা পরামর্শ বক্স স্থাপন, তথ্য কর্মকর্তা নিযুক্তকরণ, নারীবান্ধব সেবা ও অবকাঠামো তৈরি এবং সর্বোপরি নারীদের বিভিন্ন সভা-সমিতিতে সিদ্ধান্ত গ্রহণ প্রক্রিয়ায় সক্রিয় অংশগ্রহণ নিশ্চিতকরণের বিষয়ে আলোচনা ও পরামর্শ প্রদান করা হয়। এছাড়াও, সভায় সনাক এর পক্ষে সনাক সদস্য অধ্যাপক পরিমল কান্তি দে সরকারি ও বেসরকারি অফিসগুলোর ওয়েব সাইটে সেবার হালনাগাদ তথ্য প্রদানসহ সিটিজেন চার্টার দৃশ্যমান স্থানে স্থাপন করার পরামর্শ প্রদান করেন।
উপজেলা নির্বাহী অফিসারের পক্ষে মতবিনিময় সভার প্রধান অতিথি সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার সহকারি কমিশনার (ভূমি) নুসরাত ফাতিমা বলেন, একা শুধু প্রশাসন অথবা জনগণ নয়, আমাদের সকলকে দুর্নীতিরোধে এগিয়ে আসতে হবে। ব্যক্তিগত স্বার্থ ত্যাগ করে সেবার ক্ষেত্রেও সমষ্টিগত স্বার্থকেই বড় করে দেখতে হবে। তাহলেই সেবাখাতে দুর্নীতি অনেকটা কমে আসবে।
সভায় সনাক সুনামগঞ্জের ২০০৫ সাল হতে বিভিন্ন অর্জন ও সমস্যাবলি নিয়ে একটি সংক্ষিপ্ত উপস্থাপনা তুলে ধরেন ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)’র সুনামগঞ্জের এরিয়া ম্যানেজার মো. মাহবুব হোসেন। সভায় সেবা খাতের উন্নয়নে বর্তমান ও ভবিষ্যৎ বাধাসমূহ, সেসব উত্তরণের উপায় ও সহযোগিতার উপর আরও বক্তব্য রাখেন উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা এনামুর রহিম বাবর এবং উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মানিক মিয়া। সনাক সুনামগঞ্জের সদস্য ও জেন্ডার বিষয়ক উপ-কমিটির আহ্বায়ক সঞ্চিতা চৌধুরী নারীবান্ধব সেবা খাত নিশ্চিতকরণে সনাক সুনামগঞ্জের অবদান, কর্মসূচিসমূহ ও ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে আলোচনা করেন এবং প্রশাসনিক সেবাপ্রদানেও অনুরূপ সেবা নিশ্চিতকরার পরামর্শ দেন।
সভায় মুক্ত আলোচনায় বক্তব্য রাখেন সনাক সদস্য নুরুর রব চৌধূরী ও যোগেশ্বর দাশ। সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন সনাক সহ-সভাপতি কানিজ সুলতানা, সনাক সদস্য এনামুল হক চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা হাজী সৈয়দুর রহমান, মালেকা বেগম, টিআইবি’র সহকারি ব্যবস্থাপক (অর্থ ও প্রশাসন) মো. নাজমুস সাকিব এবং অফিস সহকারি আরমান আলী, ইয়েস দলনেতা শাহিদুর রহমান, সহ-দলনেতা মাহজাবিন সুলতানা মুনা ও তুষার তালুকদার।
সনাক সুনামগঞ্জের সহ-সভাপতি অ্যাড. খলিলুর রহমানের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় সভাপতির বক্তব্যে সুনামগঞ্জ সনাক’র সভাপতি ধূর্জটি কুমার বসু।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী