,

Notice :

বাজারে আসতে শুরু করছে শীতের সবজি, দাম চড়া


মোসাইদ রাহাত ::

শীতের আমেজ না আসলেও বাজারে আসতে শুরু করছে শীতকালীন শাক -সবজি। মৌসুম শুরুর আগে এই সবজি বাজারে আসলেও দাম হচ্ছে চড়া।
সবজি বিক্রেতারা বলছেন, শীতকালীন শাক সবজির আগাম উৎপাদনের জন্য কৃষকের কাছ থেকে তাদের বেশি দামে কিনতে হয়। তাই বেশি দামে বিক্রি করতে হচ্ছে। তবে শীত বাড়ার সঙ্গে এসব সবজির দাম কমবে বলেও জানান বিক্রেতারা।
শনিবার সকালে শহরের বাজার ঘুরে দেখা গেছে, বিভিন্ন ধরনের শীতের সবজি বিক্রি হচ্ছে। এসব সবজির মধ্যে শিম বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ১৫০ থেকে ১৬০ টাকায়, ফুলকপি কেজি প্রতি ১৩০ থেকে ১৪০ টাকা, বাঁধাকপি প্রতিটি ৫০ থেকে ৬০ টাকা ও বেগুন প্রতি কেজি ৪৫ থেকে ৫৫ টাকা, কাচাঁমরিচ ৮০ থেকে ৯০ টাকা, কাকরুল ৫৫ থেকে ৬০ টাকা, লাউ প্রতিটি ৫০ থেকে ৬০ টাকায়।
এছাড়া গাজর কেজি প্রতি ৯০ থেকে ১০০ টাকা, ধনে পাতা ১৪০ থেকে ১৬০ টাকা, করলা ৫০ থেকে ৫৫ টাকা, টমেটো বিক্রি হচ্ছে ১০০ টাকা কেজি দরে।
তবে শীতের নতুন আলু বাজারে আসেনি এখনো। কয়েকদিনের মধ্যেই নতুন আলু বাজারে পাওয়া যাবে বলে বিক্রেতারা জানান।
বাজারে সবজি কিনতে আসা রফিক চৌধুরী বলেন, এখন শীতকালীন সবজি দাম চড়া। সবজির দাম আরেকটু কমলে সকলের নাগালে থাকবে।
তার মতোই রুকন উদ্দিন বলেন, মাত্র আসতে শুরু করেছে সবজিগুলো। এগুলোর দাম এখন অনেক বেশি। তাই আশা করি শীত বাড়ার সাথে সাথে দামও কমবে।
বাজারের সবজি বিক্রেতা রাসেল মিয়া বলেন, বাজারে এখনো ভালো মতো সবজি আসে নাই। কয়েক সপ্তাহ ধরেই শীতের নানা ধরনের সবজি বিক্রি হচ্ছে। তবে এখন সবজির দাম কিছুটা বাড়তির দিকে। সরবরাহ বাড়ার সাথে সাথে দাম কমবে বলে জানান তিনি।
বিক্রেতা বরুণ দাশ বলেন, শীতের সবজির দাম উঠানামায় রয়েছে। এখনো সবজির সরবরাহ বাড়েনি। কয়েক সাপ্তাহ পর থেকে বাজারে সবজি আসা শুরু করবে তখন শীতের সবজির দাম অনেকাংশ কমে যাবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী