,

Notice :

পণ্য প্রদর্শনী মেলায় নিম্নমানের পণ্যের দাম অধিক

স্টাফ রিপোর্টার::
সুনামগঞ্জ ঐতিহ্য যাদুঘরে শুরু হওয়া ‘বহুজাতিক হস্ত শিল্প ও পণ্য প্রদর্শনী মেলা’য় নিম্নমানের পণ্য অধিক মূল্যে বিক্রি হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এতে স্থানীয় ক্রেতারা প্রতারিত হচ্ছেন। নিম্নমানের পণ্যে বেশি মূল্য রাখায় ক্রেতারাও আর্থিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন। মেলায় কোন মান সম্পন্ন পণ্য না থাকায় ক্ষোভও প্রকাশ করতে দেখা গেছে ক্রেতাদের। এ কারণে মেলাটি ক্রেতা টানতে পারেনি। উপস্থিতিও কম লক্ষ্য করা গেছে।
ঐতিহ্য যাদুঘরে গত সপ্তাহ থেকে শুরু হওয়া শাপলা মহিলা উন্নয়ন সমিতির বহুজাতিক হস্ত শিল্প ও পণ্য প্রদর্শনী মেলায় জেলার বাইরের বিভিন্ন স্থান থেকে প্রায় ৩০টি স্টল এসেছে। কাপড়, ক্রোকারিজ, খেলনা, অর্নামেন্ট, কসমেটিকসসহ নানা ধরণের ৩০টি স্টল রয়েছে মেলায়।
সরেজমিন বুধবার রাতে ঐতিহ্য যাদুঘরে গিয়ে দেখা যায় ক্রেতাদের উপস্থিতি কম। বিভিন্ন স্টলে কিছু ক্রেতা দরদমা করছেন। কিন্তু পণ্য দেখে ফিরে যাচ্ছেন তারা।
সরেজমিন দেখা গেছে কাড়াকাড়ি অফার দিয়ে একটি খেলনার দোকান শিশু খেলনার দাম রেখেছে ১৩০ টাকা। অথচ এই পণ্য সুনামগঞ্জে ৯৯ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। কাপড়ের দোকানে গিয়ে দেখা যায় নরমাল ত্রিপিছ সুনামগঞ্জের দোকান গুলোতে যে মূল্য রাখা হয়েছে মেলার দোকানগুলোতে ১৫০-২০০ টাকা বেশি রাখা হচ্ছে। একই ভাবে ভ্যানেটি ব্যাগের দামও বেশি রাখা হচ্ছে।
মেলায় শহরের ধোপাখালি এলাকা থেকে ছেলে ও স্ত্রীকে নিয়ে এসেছেন মাসুদ নামের এক যুবক। বিভিন্ন স্টল ঘুরে দেখেন গুণগত মান সম্পন্ন পণ্য নেই। তিনি বলেন, যেসব শিশু খেলনা সুনামগঞ্জের দোকান গুলো থেকে ৯৯ টাকায় কেনা যায়। তাছাড়া ত্রিপিছ গুলোর গুনগত মান ভালো না হলেও দাম বেশি। অর্নামন্টের দোকানেও নিম্নমানের পণ্যে অধিক দাম চায় বলে জানান তিনি।
কলেজ ছাত্রী ইভা বলেন, মেলার কথা শুনে এসেছিলাম ভালো পণ্য কম মূল্যে কিনব। কিন্তু মেলায় এসে দেখি ভালো পণ্যতো নেইই, তারপরও দাম বেশি। তাই না কিনেই চলে এসেছি।
মেলার স্টল গুলো ঘুরেও আয়োজকদের কোন অফিস পাওয়া যায়নি। তাই তাদের বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী