বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই ২০১৯, ০৯:২৯ পূর্বাহ্ন

Notice :

সুনামগঞ্জ – ৪ : ইনানের প্রার্থীতায় নতুন মেরুকরণ

বিশেষ প্রতিনিধি ::
দ্বিবার্ষিক সম্মেলনে জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ জাতীয় পার্টির প্রার্থী হিসেবে বর্তমান সংসদ সদস্য অ্যাড. পীর ফজলুর রহমান মিসবাহকে প্রার্থী ঘোষণা করায় হতাশ হয়েছেন সাবেক মন্ত্রী মেজর ইকবাল পুত্র ইনান ইসমাম চৌধুরী’র সমর্থকরা। তবে জাতীয় পার্টির প্রার্থী হিসেবে পীর মিসবাহর নাম এরশাদ ঘোষণা করে গেলেও মহাজোট থেকে এ নিয়ে কোন বক্তব্য পাওয়া যায়নি।
মহাজোট নেতারা জানিয়েছেন জোটভুক্ত হিসেবে জোটভুক্ত দলের যে কেউ মনোনয়ন চাইতে পারে বা সংশ্লিষ্ট দলের চেয়ারম্যান প্রার্থী ঘোষণা করতে পারেন। এদিকে এরশাদের জাতীয় পার্টির প্রার্থী ঘোষণার পরই সুনামগঞ্জ-৪ আসনে মহাজোটের মনোনয়ন প্রত্যাশী সাবেক মন্ত্রী ও জাতীয় পার্টি নেতা প্রয়াত মেজর ইকবাল হোসেন চৌধুরী ও সাবেক এমপি বেগম মমতাজ ইকবাল-এর একমাত্র ছেলে ইনান চৌধুরী প্রিয় এখনো নিজেকে মহাজোটের সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে প্রচারণা চালাচ্ছেন। রাজনৈতিক নানা চালে শেষ পর্যন্ত বিএনপি নির্বাচনে না গেলে এবং জাতীয় পার্টি একক নির্বাচনে গেলে স্বতন্ত্র প্রার্থী হবেন বলে ঘোষণা দিয়েছেন। তার এই ঘোষণায় উল্লসিত তার সমর্থকরা।
জানা গেছে, মহাজোট প্রার্থী হিসেবে গত এক বছর ধরে নির্বাচনী মাঠে রয়েছেন ইনান ইসমাম চৌধুরী প্রিয়। তার পিতা-মাতার জনপ্রিয়তাকে কাজে লাগিয়ে তিনি প্রচারণায় বেশ সুবিধায় আছেন। তাছাড়া পিতার পুরনো কর্মীদেরও খুঁজে বের করে তার প্রচারণায় যুক্ত করেছেন। গত রোববার জাতীয় পার্টির সুনামগঞ্জ জেলার দ্বিবার্ষিক সম্মেলনে এরশাদ জাতীয় পার্টির প্রার্থী হিসেবে পীর মিসবাহর নাম ঘোষণা করেন। এতে পীর মিসবাহর সমর্থকরা খুশি হলেও খুশি হননি ইনান ইসমাম চৌধুরীর অনুসারীরা। জানা গেছে এরশাদ দলীয় প্রার্থী ঘোষণা করতে পারেন এমন আশঙ্কা থেকে ব্যক্তিগত সমস্যা দেখিয়ে সমাবেশে যাননি ইনান ইসমাম চৌধুরী প্রিয়। দ্বিবার্ষিক সম্মেলন নির্বাচনী সমাবেশে রূপ নেওয়ায় হতাশ হন তার সমর্থকরাও।
ইনানের ঘনিষ্ঠ একটি সূত্রে জানিয়েছে, এখনো জাতীয় নির্বাচন নিয়ে নানা জল্পনা-কল্পনা চলছে। মহাজোট নানা চিন্তা-ভাবনা করছে প্রার্থী নিয়ে। মহাজোটের প্রধান দল আওয়ামী লীগ এখনো প্রার্থী চূড়ান্ত করেনি। আওয়ামী লীগ জেলার গুরুত্বপর্ণ এই আসনটি ছাড় দিতে নারাজ।
জানা গেছে, বিএনপি যদি নির্বাচনে না আসে এবং জাতীয় পার্টি থেকে সুনামগঞ্জ-৪ আসনে অ্যাডভোকেট পীর মিসবাহ মনোনয়ন পান তাহলে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করবেন ইনান চৌধুরী। সে লক্ষ্যে তিনি প্রস্তুতি নিচ্ছেন।
মহাজোটের শরিক দল জাসদ (আম্বিয়া) সুনামগঞ্জ জেলার সাধারণ সম্পাদক সালেহিন চৌধুরী শুভ বলেন, এরশাদের কথা সদা পরিবর্তনশীল। তিনি সকালে এক কথা বললে বিকেলে সেটা ভুলে যান। মানুষ তার কথায় ভরসা পায়না। মহাজোট এই আসনে শক্তিশালী প্রার্থী খুঁজছে বলে জানান তিনি।
ইনান ইসমাম চৌধুরী প্রিয় বলেন, আমি নির্বাচন করার লক্ষ্যেই প্রস্তুতি নিচ্ছি। কোন কারণে বিএনপি নির্বাচনে না গেলে এবং অ্যাডভোকেট পীর মিসবাহ সুনামগঞ্জ-৪ আসনে মনোনয়ন পেলে আমি স্বতন্ত্র নির্বাচন করব। তাছাড়া মহাজোট এখনো এই আসনে প্রার্থী ঘোষণা না করায় তিনি এ নিয়ে চিন্তিত নন উল্লেখ করে বলেন, মহাজোট নির্বাচনে শক্তিশালী প্রাথীই এখানে দিবে। আমি এখনো আশাবাদী মহাজোটের মনোনয়ন পাব।
সুনামগঞ্জ-৪ আসনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান নূরুল হুদা মুকুট বলেন, ডিস্ট্রিক্ট হেডকোয়ার্টার হিসেবে এখানে আওয়ামী লীগের প্রার্থী দরকার। আমাদের কোন নেতা-কর্মী এখানে মূল্যায়ন পাননা। তাই সবার দাবি সুনামগঞ্জ-৪ আসনে আ.লীগের প্রার্থী দেয়া হোক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী