,

Notice :
«» সোমবার শহীদ সিরাজ লেকে ‘ইত্যাদি’র দৃশ্যায়ন «» জামালগঞ্জের দৌলতা ব্রীজ মরণ ফাঁদ «» রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন অ্যাড. রুমেন «» আয়কর মেলা সমাপ্ত : ৪ দিনে কর আদায় সাড়ে ১২ লক্ষ টাকা «» ‘নীলাদ্রি’ নয় শহীদ সিরাজ লেক নামে ‘ইত্যাদি’ অনুষ্ঠানে প্রচারের জন্য স্মারকলিপি «» নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘন : সহকারি রির্টানিং অফিসারের কাছে অভিযোগ «» মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিসংরক্ষণ কর্মকে প্রবল ও বেগবান করুন «» কেন্দ্রের দিকে তাকিয়ে মনোনয়ন প্রত্যাশীরা «» নির্বাচনী মাঠ ফাঁকা : প্রার্থীরা ঢাকায়, উৎকণ্ঠা উত্তেজনায় কাটছে প্রতি মুহূর্ত «» প্রশাসনের উদ্যোগ : প্রার্থীদের নির্বাচনী ব্যানার পোস্টার অপসারণ

হাওর বাঁচাও সুনামগঞ্জ বাঁচাও আন্দোলনের স্মারকলিপি প্রদান :কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরে জনবল নিয়োগের দাবি

স্টাফ রিপোর্টার ::
কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরে প্রয়োজনীয় জনবল নিয়োগ ও কৃষি সহায়তা কার্ড সংস্কারের দাবিতে সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান করেছে হাওর বাঁচাও সুনামগঞ্জ বাঁচাও আন্দোলন কেন্দ্রীয় কমিটি। রোববার দুপুরে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে এই স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।
স্মারকলিপিতে উল্লেখ করা হয়- সুনামগঞ্জ জেলার কৃষি বিভাগ জনবল সংকটে স্থবির হয়ে পড়েছে। ১১ উপজেলার মধ্যে দুই উপজেলায় কৃষি কর্মকর্তা নেই। ১১জন অতিরিক্ত কৃষি কর্মকর্তা থাকার বিধান থাকলেও এ হাওরাঞ্চলের জেলায় একজনও নেই। ২২ জন কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তার মধ্যে আছেন মাত্র একজন, ২৬৩ জন উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তার মধ্যে আছেন মাত্র ১০৮ জন। হাওরে বোরো আবাদের সময়ে কৃষির সাথে সম্পর্ককৃত কর্মকর্তারা না থাকায় হাওরাঞ্চলের বিশাল ক্ষতির কারণ হতে পারে। কৃষি বিভাগের জনবল শূন্যতা পূরণ এ এলাকার কৃষকদের প্রাণের দাবি।
স্মারকলিপিতে আরো উল্লেখ করা হয়, কৃষি সহায়তা কার্ড প্রকৃত কৃষকরা না পাওয়ায় তারা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন। অকৃষকদের হাতে কার্ড থাকায় কৃষকরা তাদের উৎপাদিত ধান খাদ্য বিভাগের কাছে বিক্রিও করতে পারছেন না। তারা দাবি করেন, শাক-সবজি চাষাবাদকারি কৃষকদের ক্ষেত্রে জমির পরিমাণ যাই থাকুক, হাওরে বোরো ফসলচাষী কৃষকের কার্ড পাবার যোগ্যতা ন্যূনতম ৬০ শতাংশ নির্ধারণ এবং সরকারি খাদ্যগুদামে বোরোধান চাষী ভিন্ন অন্য কোন কৃষকের ধান বিক্রির সুযোগ বন্ধ করা।
স্মারকলিপি প্রদানকালে উপস্থিত ছিলেন, হাওর বাঁচাও সুনামগঞ্জ বাঁচাও আন্দোলনের উপদেষ্টা রমেন্দ্র কুমার দে মিন্টু, কেন্দ্রীয় সিনিয়র সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু সুফিয়ান, সাধারণ সম্পাদক বিজন সেন রায়, যুগ্ম সম্পাদক সালেহিন চৌধুরী শুভ, সাংগঠনিক সম্পাদক একে কুদরত পাশা, মৎস্য বিষয়ক সম্পাদক তোহা মির্জা, সদস্য মানব চৌধুরী, অ্যাডভোকেট নাসিরুল হক আফিন্দী, অ্যাডভোকেট সাজ্জাদ হোসেন প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী