,

Notice :
«» শাবিতে ভর্তি পরীক্ষায় ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে প্রথম হয়েছে শাহিলা চৌধুরী «» জগন্নাথপুরে প্রবাসীর উদ্যোগে রাস্তায় মাটি ভরাট «» স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রয়াত সভাপতি রমা দাসের জন্মদিন পালন «» সামাজিক সম্প্রীতি বিষয়ক কর্মশালা «» হাওর বাঁচাও সুনামগঞ্জ বাঁচাও আন্দোলনের বাদাঘাট দক্ষিণ ইউনিয়ন কমিটি গঠন «» ধর্মপাশায় পূজা মণ্ডপ পরিদর্শন করেন রনজিত সরকার «» কাজ-না-করা সরকারি প্রতিষ্ঠান দেশের উন্নতিকে পিছনে টানে «» পণ্য প্রদর্শনী মেলায় নিম্নমানের পণ্যের দাম অধিক «» তাহিরপুর-মধ্যনগরে ব্যারিস্টার ইমনের মতবিনিময়: নির্বাচনী এলাকায় নতুন আলোচনা «» শিক্ষক সংকটে দক্ষিণ সুনাগঞ্জের অধিকাংশ বিদ্যালয় ভারপ্রাপ্ত দিয়ে চলছে শিক্ষা কার্যক্রম

বিশ্বম্ভরপুরে যুবককে জবাই করে হত্যা

বিশ্বম্ভরপুর প্রতিনিধি ::
বিশ্বম্ভরপুরে এক যুবককে জবাই করে হত্যা করেছে আরেক যুবক। সোমবার বিকেলে উপজেলার বাঘবেড় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের সড়কে এ মর্মান্তিক ঘটনা ঘটে। একই এলাকার জাবেদ আলী (২৮) নামের যুবককে হত্যার পর হত্যাকারী রহমত আলী (২৮) সে নিজেই পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ তাকে গ্রেফতার করেছে। পুলিশের কাছে জবানবন্দীতে সে হত্যাকা-ের কথা স্বীকার করেছে। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।
পুলিশ, এলাকাবাসী ও হত্যাকারীর জবানবন্দী সূত্রে জানা যায়, সলুকাবাদ ইউনিয়নের বাঘবেড় গ্রামের আক্তার মিয়ার ছেলে রহমত আলীর বাড়িতে প্রায়ই আসা-যাওয়া করতো পার্শ্ববর্তী আক্তাপাড়া গ্রামের যুবক জাবেদ আলী। ফলে রহমত আলীর স্ত্রীর সঙ্গে জাভেদের পরকীয়ার সম্পর্ক গড়ে ওঠে। তারা প্রায়ই ফোনে কথা বলতেন। এ নিয়ে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যেও দাম্পত্য কলহেরও সৃষ্টি হয়। হত্যার পর সোমবার সন্ধ্যায় ঘাতক রহমত আলী পুলিশকে জানায়, একদিন রাতে স্ত্রী ও জাভেদের মধ্যে পরকীয়া সম্পর্কের বিষয়টি হাতেনাতে ধরতে পেরে সে জাভেদকে হত্যার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়। হত্যার পরিকল্পনাও করতে থাকে। কিন্তু সময় ও সুযোগ পাচ্ছিলনা। অবশেষে গতকাল সোমবার বিকেল ৫টার দিকে জাভেদ আলী বাঘবেড় সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের সড়ক দিয়ে যাওয়ার সময় পেছন দিক দিয়ে তাকে রড দিয়ে আঘাত করে। রডের আঘাতে মাটিতে লুটিয়ে পড়ার সাথে সাথেই রহমত আলী সঙ্গে থাকা ধারালো ছুরি দিয়ে তাকে গলা কেটে হত্যা করে। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় জাভেদের। মৃত্যুর পর রহমত আলী পুলিশকে খবর দেওয়ার জন্য ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ে যায়। সেখানে কাউকে না পেয়ে বাঘবেড় বাজারে এসে জাভেদকে হত্যার ঘটনা প্রচার করতে থাকে এবং পুলিশকে খবর দেওয়ার জন্য অনেককে অনুরোধ জানায়। এদিকে প্রত্যক্ষদর্শীরা এই ঘটনা দেখে স্থানীয় পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ খবর পেয়ে বাজার ঘাতক রহমত আলীকে গ্রেফতার করে। পুলিশের কাছে জবানবন্দীতে জাভেদকে হত্যার কথা স্বীকার করেছে ঘাতক। রহমত আলী তিন সন্তানের জনক। অন্যদিকে নিহত জাভেদ আলী বিবাহিত হলেও সে নিঃসন্তান বলে জানা গেছে।
বিশ্বম্ভরপুর থানার ওসি মোল্লা মনির হোসেন বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় ঘাতককে গ্রেফতার করা হয়েছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে তিনি জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ভিডিও গ্যালারী

ভিডিও গ্যালারী